আলোচনায় বসতে ইউনাইটেডের ডেরায় রোনালদো

ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড ছাড়তে চান। সে বিষয়ে অবগত প্রায় সব ফুটবলপ্রেমী। কারণটাও সবার জানা, চ্যাম্পিয়ন্স লিগ খেলতে তিনি ছাড়তে চান ওল্ড ট্রাফোর্ড। গত মৌসুমে সেরা চারে থেকে লিগ শেষ করতে না পারায় ইউরোপের ক্লাব ফুটবলের শ্রেষ্ঠ প্রতিযোগিতায় খেলার যোগ্যতা হারিয়েছে ম্যানইউ।

0 8,906

পারিবারিক কারণ দেখিয়ে প্রাক মৌসুম প্রস্তুতি পর্বে না থাকলেও অবশেষে ইংল্যান্ডে ফিরেছেন রোনালদো। সংবাদমাধ্যম দ্য অ্যাথলেটিকের বরাতে জানা গেছে, ক্লাবে নিজের ভবিষ্যৎ নিয়ে আলোচনা করতেই সোমবার (২৫ জুলাই) ক্লাবে ফিরেছেন তিনি।

এদিকে, ইংল্যান্ডে ফেরার একদিন পরই মঙ্গলবার (২৬ জুলাই) এজেন্ট জর্জ মেন্ডিসকে সঙ্গে নিয়ে ইউনাইটেডের ক্যারিংটন ট্রেনিং শিবিরে গেছেন সিআরসেভেন। দ্য অ্যাথলেটিক জানাচ্ছে, ক্লাবে নিজের ভবিষ্যৎ নিয়ে আলোচনা করতেই সেখানে গেছেন রোনালদো।

ইউনাইটেড নতুন কোচ টেন হ্যাগের অধীনে এখনো কোনো ম্যাচ খেলা হয়নি পর্তুগিজ সুপারস্টারের। পারিবারিক কারণ দেখিয়ে ছিলেন না ক্লাবের প্রাক মৌসুম প্রস্তুতি পর্বের থাইল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়া ট্যুরেও। সোমবার ক্লাবে যোগ দিয়েছেন রোনালদো। উদ্দেশ্য ভালো অফার পেলে অন্য ক্লাবে চলে যাওয়ার বিষয়ে আলাপটা আরেকটু সেরে নেয়া। যদিও এখনো পর্যন্ত ইউনাইটেড বলছে, রোনালদো বিক্রির জন্য নয়।

এদিকে, যুক্তরাজ্য ভিত্তিক সংবাদমাধ্যম দ্য মিরর জানাচ্ছে, ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড চাইছে রোনালদোর সঙ্গে চুক্তির মেয়াদ আরও এক বছর বাড়িয়ে ২০২৪ পর্যন্ত নিয়ে যেতে। আর এ শর্তে যদি পর্তুগিজ তারকা রাজি হন, তাহলে এ মৌসুমে চ্যাম্পিয়ন্স লিগ খেলার জন্য নিজের পছন্দের ক্লাবে লোনে যেতে পারবেন তিনি।

আরেক ব্রিটিশ সংবাদ মাধ্যম দ্য সান জানাচ্ছে, ক্লাব থেকে লোনে খেলার এমন প্রস্তাব পেয়ে অবাক হয়েছেন রোনালদো ও তার প্রতিনিধি জর্জ মেন্ডেস। এমন প্রস্তাবে অবশ্য কোনো সাড়া দেননি পর্তুগিজ তারকা। তিনি কোনোভাবেই থাকতে চাইছেন না ওল্ড ট্রাফোর্ডে।

এদিকে রোনালদোর বয়স আগামী ফেব্রুয়ারিতে পাড়ি দেবে ৩৮ বছরে। ক্যারিয়ারের সায়াহ্নে এসে তাই ক্লাব ফুটবলের শ্রেষ্ঠ প্রতিযোগিতায় তিনি অংশ নিতে পারবেন না౼সেটা মানতে পারছেন না। নিজের প্রতিনিধিকে জানিয়েছেন, চ্যাম্পিয়ন্স লিগ খেলার যোগ্যতা অর্জন করেছে এমন ক্লাবের সঙ্গে যোগাযোগ করতে। তার প্রতিনিধি জর্জ মেন্ডেস নির্দেশনা পেয়ে চেলসি, বায়ার্ন মিউনিখ, পিএসজি, ইন্টার মিলান, এসি মিলানসহ একাধিক ক্লাবের সঙ্গে আলোচনা করেছেন। কিন্তু তার উচ্চ বেতন কাঠামোর কারণে অধিকাংশ ক্লাবই তাকে না করে দিয়েছে।

আরও পড়ুন : অবশেষে ফিরলেন রোনালদো

শোনা যাচ্ছে, স্প্যানিশ ক্লাব অ্যাতলেটিকো মাদ্রিদ তাকে দলে ভেড়াতে আগ্রহ প্রকাশ করেছে। তবে সেখানে দেখা ‍দিয়েছে আরেক সমস্যা। তাকে দলে নিতে আগ্রহ প্রকাশ করার পর ক্লাবের ওপর ক্ষ্যাপা অ্যাতলেটিকো মাদ্রিদের সমর্থকরা। রীতিমত অনলাইনে প্রতিবাদের ঝড় তুলেছে ক্লাব সমর্থকরা। এমনটাই জানিয়েছে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম মিরর।

Leave A Reply

Your email address will not be published.