‘মেসি তার সময়ের সেরা, সর্বকালের সেরা নয়’

আর্জেন্টিনার সর্বকালের সেরা দুই ফুটবলার ডিয়েগো ম্যারাডোনা ও লিওনেল মেসি। এই দুই মহাতারকার মাঝে তুলনা করা নতুন কিছু নয়। তবে ম্যারাডোনাপুত্র এই তুলনাকে পুরোপুরি অমূলক মনে করেন। ম্যারাডোনা জুনিয়রের মতে, মেসি এই সময়ের সেরা হতে পারেন, তবে সর্বকালের সেরা হতে পারবেন না মেসি।

0 10,957

সম্প্রতি আর্জেন্টাইন রেডিও স্টেশন ‘রেডিও দেল প্লাতা’য় দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে ম্যারাডোনা আর মেসির মাঝে তুলনা টানার প্রসঙ্গে নিজের মত ব্যক্ত করেন ম্যারাডোনার পুত্র ম্যারাডোনা জুনিয়র। তিনি বলেন, ‘আমি মেসির সমাদর করি। আমি মনে করি সে তার সময়ের সেরা, তবে সর্বকালের সেরা নয়। আমার বাবার পর্যায়ে যাওয়া কারও পক্ষে সম্ভব নয়।’

তবে এই বলে মেসিকে অপছন্দ করেন তিনি তা না। আর্জেন্টিনাকে কোপা আমেরিকা জিতিয়ে মেসি নিন্দুকদের মুখ বন্ধ করায় খুশি ম্যারাডোনা জুনিয়র। সেই সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, ‘জাতীয় দলকে যখন মেসি কোপা আমেরিকা জিতিয়েছিল তখন অনেক খুশি হয়েছিলাম। ওটার মাধ্যমে সে অনেকের মুখ বন্ধ করে দিয়েছিল। তবে আমার বাবা সবার উপরে। মেসি হয়ত মানব ইতিহাসের সেরা হতে পারে, তবে আমার বাবা তো মানুষের চেয়েও বেশি কিছু ছিলেন।’

যে বছর ম্যারাডোনার অতিমানবীয় পারফরম্যান্সের সুবাদে বিশ্বকাপ জিতেছিল আর্জেন্টিনা, সেই ১৯৮৬ সালেই নেপলসে ক্রিস্টিয়ানা সিনাগ্রা নামক এক নারীর সঙ্গে ম্যারাডোনার সম্পর্ক হয়েছিল। আর সেই সম্পর্ক থেকেই জন্ম হয় ম্যারাডোনা জুনিয়রের।

ম্যারাডোনা অবশ্য প্রথমে তার এই পুত্রের পিতা হওয়ার ব্যাপারে অস্বীকৃতি জানিয়েছিলেন। তবে পরবর্তীতে ১৯৯৩ সালে আদালত ম্যারাডোনাকে তার পিতা হিসেবে ঘোষণা করে। আর ম্যারাডোনার সঙ্গে তার এই পুত্রের প্রথম দেখা হয়েছিল তারও দশ বছর পর, ২০০৩ সালে। শেষ পর্যন্ত ২০০৭ সালে ম্যারাডোনা তার এই সন্তানকে আনুষ্ঠানিকভাবে স্বীকার করে নেন।

২০২০ সালের ২৫ নভেম্বরে সবাইকে কাঁদিয়ে পরলোকগমন করেন সর্বকালের অন্যতম সেরা ফুটবলার ডিয়েগো ম্যারাডোনা।

Leave A Reply

Your email address will not be published.