অবশেষে আফগানিস্তানে তত্ত্বাবধায়ক সরকার প্রধানের নাম ঘোষণা করেছে দেশটির নিয়ন্ত্রণকারী গোষ্ঠী তালেবান।

আফগানিস্তানের সংবাদমাধ্যম টোলো নিউজ এবং ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম এনডিটিভি জানায়, মঙ্গলবার(৭ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যায় তালেবানের মুখপাত্র জাবিউল্লাহ মুজাহিদ এক সংবাদ সম্মেলনে এই ঘোষণা দেন।

 
জাবিউল্লাহ মুজাহিদ জানান, জাতিসংঘের নিষেধাজ্ঞায় থাকা মোল্লা মোহাম্মদ হাসান আখুন্দ তত্ত্বাবধায়ক সরকারের প্রধান হিসেবে নতুন সরকারের নেতৃত্ব দেবেন।
 
তার প্রথম ডেপুটি হিসেবে কাজ করবেন তালেবান গোষ্ঠীর সহ-প্রতিষ্ঠাতা আব্দুল গনি বারাদার। এছাড়া দ্বিতীয় সহকারী প্রধান  মৌলভী হান্নাফি।

 
এনডিটিভি জানায়, হাক্কানি নেটওয়ার্কের প্রধান সিরাজুদ্দিন হাক্কানি তত্ত্বাবধায়ক সরকারের ভারপ্রাপ্ত স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর দায়িত্ব পেয়েছেন। এছাড়া তালেবান প্রতিষ্ঠাতা মোল্লা ওমরের ছেলে মোল্লা ইয়াকুব ভারপ্রাপ্ত প্রতিরক্ষামন্ত্রীর দায়িত্ব পেয়েছেন বলে জানিয়েছেন জাবিউল্লাহ মাসুদ।
 
সরকার প্রধানের নাম ঘোষণার সময় জাবিহুল্লাহ মুজাহিদ বলেন, ‘আমরা জানি আমাদের দেশের মানুষ নতুন একটি সরকারের জন্য অপেক্ষা করছিল। এখনো মন্ত্রীসভা পুরোপুরি গঠন করা হয়নি তবে এর প্রক্রিয়া চলমান। ’
 
এর আগে অর্থমন্ত্রী, ভারপ্রাপ্ত স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ভারপ্রাপ্ত প্রতিরক্ষামন্ত্রী এবং ভারপ্রাপ্ত উচ্চ শিক্ষামন্ত্রীর নাম ঘোষণা করেছিল তালেবান গোষ্ঠী। তবে স্বরাষ্ট্র ও প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বে পরিবর্তন আনা হয়েছে বলে জানিয়েছে তারা।
 
এদিকে সরকার গঠন হলে সবার আগে স্বীকৃতি দেয়ার ঘোষণা এসেছে রাশিয়ার পক্ষ থেকে। নতুন সরকারের শপথ অনুষ্ঠানেও রাশিয়ার পক্ষ থেকে অংশ নেবেন প্রতিনিধিরা।

অন্তর্ভুক্তিমূলক সরকার গঠনে তালেবানকে পাকিস্তান সহায়তা করবে বলে জানিয়েছেন দেশটির সেনাপ্রধান জেনারেল কামার জাভেদ বাজওয়া।

এ অবস্থায় মার্কিন শীর্ষ রিপাবলিকান সিনেটর লিন্ডসে গ্রাহাম এক সাক্ষাৎকারে বলেছেন, মার্কিন সেনারা ভবিষ্যতে আবার আফগানিস্তানে ফিরে যাবে। সন্ত্রাসবাদ বাড়লে অভিযান পরিচালনা করা হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here