জাতীয় অর্থপেডিক হাসপাতালে অভিযান চালিয়ে মঙ্গলবার (২৭ জুলাই) ৯ দালালকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালত। একই সাথে প্রত্যেক আসামিকে ১ মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জানায়, চিকিৎসা নেই, ডাক্তার নেই বলে হাসপাতালের কম্পাউন্ড থেকেই রোগী সরিয়ে নিত দালালরা। র‌্যাব জানায়, আসামিরা সুবিধা প্রদানের নামে রোগীদের কাছ থেকে অর্থ হাতিয়ে নিয়ে সেসব রোগীকে পাঠাতো বেসরকারি হাসপাতালে। এক সময় কোনো যোগাযোগ রাখতেন না রোগীদের সাথে।

র‌্যাবের সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ভুক্তভোগীরা জানান, অল্প টাকায় তাদের অপারেশনের ব্যবস্থা করে দেওয়ার আশ্বাস দেয় দালালরা, এর জন্য ৫-১০  হাজার টাকা নেয় তারা। পরে বিভিন্ন বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করে চম্পট দেয় তারা। তবে সাশ্রয়ে চিকিৎসার কথা বলা হলেও মূলত এসব ভুক্তভোগীর খরচ বেড়েছে কয়েকগুন বেশি। সাথে ভুগতে হয়েছে দীর্ঘ সময়।

র‌্যাবের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট পলাশ কুমার বসু জানান, গত কয়েকদিনে হাসপাতালে তৎপরতা চালিয়ে এসব দালালকে চিহ্নিত করা হয়। মঙ্গলবার বিকেলে অভিযান চালিয়ে ৯ জনকে গ্রেপ্তার করে ভ্রাম্যমাণ আদালত।

 

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here