করোনা প্রতিরোধে রাশিয়ার উৎপাদিত স্পুটনিক-ভি টিকা নিয়েছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। টিকা নিয়ে বেশ কয়েক মাস তা গোপন রাখার পর বুধবার (৩০ জুন) তিনি এমন দাবি করেছেন।

 

চলতি বছরের মার্চ ও এপ্রিলে টিকার দুটি ডোজ নিয়েছেন তিনি। তবে তার টিকা নেওয়ার কোনো ভিডিও ফুটেজ প্রকাশ করা হয়নি। খবর আরবনিউজ ও মস্কো টাইমসের। 

বিশ্বের প্রথম নিবন্ধিত করোনার টিকা স্পুটনিক-ভি। মঙ্গোলিয়া ও ব্রাজিলকেও এই টিকা সরবরাহ করা হয়েছে। গত মে মাসে পুতিন বলেন, কালাশনিকভ অ্যাসল্ট রাইফেলের মতোই এই টিকার ওপর নির্ভর করা যায়। 

এছাড়াও আরও দুটি টিকা উৎপাদন করেছে রাশিয়া। যদিও দেশটিতে টিকা নেওয়ার হার খুবই কম। এখন পর্যন্ত ১৩ শতাংশ রুশ নাগরিক টিকার দুটি ডোজ নিয়েছেন। 

সেই তুলনায় যুক্তরাষ্ট্রের অর্ধেকেরও বেশি ও আইসল্যান্ডের ৮৭ শতাংশ নাগরিক করোনাপ্রতিরোধী টিকা নিয়েছেন।
বুধবার রাশিয়ায় ২১ হাজার ৪২ নতুন করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছেন। তাদের মধ্যে মারা গেছেন ৬৬৯ জন। দেশটিতে মহামারির প্রাদুর্ভাব শুরু হওয়ার এটিই সবচেয়ে বেশি মৃত্যুহার। 

এদিকে অতিসংক্রামক ডেল্টা ভ্যারিয়েন্টও শনাক্ত হয়েছে রাশিয়া। যদিও দেশটিতে আরও বিপজ্জনক করোনার ধরনের উপস্থিত আছে বলে সন্দেহ করা হচ্ছে। 

রুশ স্বাস্থ্য মন্ত্রী মিখাইল মুরাশকো বলেন, করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে রাশিয়ায় এখন এক লাখ ৫১ হাজার মানুষ হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here