সংস্থাটির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, গত ২০ বছরে প্রায় ৩০ হাজার পক্ষাঘাতগ্রস্ত ও যুদ্ধ-ফেরত সেনা আত্মহত্যা করেছেন। অথচ যুদ্ধের কারণে মারা গেছেন মাত্র সাত হাজার সেনা।

 

২০০১ সালের ১১ সেপ্টেম্বরের পর থেকে সন্ত্রাসবিরোধী যুদ্ধের কারণে এখন পর্যন্ত যত মার্কিন সেনা মারা গেছেন তার চেয়ে চারগুণ বেশি মারা গেছেন আত্মহত্যা করে।   

সোমবার (২১ জুন) ‘কস্ট অব ওয়ার প্রজেক্ট’ নামে একটি সংস্থা এ তথ্য জানিয়েছে। খবর পার্সটুডের। 

সংস্থাটির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, গত ২০ বছরে প্রায় ৩০ হাজার পক্ষাঘাতগ্রস্ত ও যুদ্ধ-ফেরত সেনা আত্মহত্যা করেছেন। অথচ যুদ্ধের কারণে মারা গেছে সাত হাজার সেনা। 

মার্কিন সেনা সদর দপ্তর পেন্টাগনের মুখপাত্র জন কিরবি বলেছেন, আমাদের সামরিক বিভাগের লোকজনের স্বাস্থ্য নিরাপত্তা এবং কল্যাণ সর্বোচ্চ অগ্রাধিকার পায়। আত্মহত্যার মধ্যদিয়ে প্রতিটি মৃত্যুর ঘটনা দুঃখজনক। সময়ের পরিক্রমায় আমেরিকার সাধারণ মানুষের মধ্যে আত্মহত্যার প্রবণতা বেড়েছে। সমাজে যা ঘটছে তা থেকে আমাদের সেনা সদস্যরা মুক্ত নয়।
সাবেক প্রেসিডেন্ট জর্জ বুশ বিশ্বব্যাপী সন্ত্রাসবাদ-বিরোধী লড়াইয়ের নামে দেশে দেশে আগ্রাসন শুরুর পর থেকে এ পর্যন্ত পাঁচ হাজারের বেশি সেনা আত্মহত্যা করেছেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here